বাংলার জন্য ক্লিক করুন
   শনিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর 2020 | ,২১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৭
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|

   শেয়ার করুন
Share Button
   এক্সক্লুসিভ
  ‘সেদিন বঙ্গবন্ধুর পাশের চেয়ারে বসেছিলাম’
  12, August, 2017, 11:13:28:PM

১৯৬৯ সালে সাংগঠনিক সফরের সময় কক্সবাজারে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সঙ্গে প্রথম সাক্ষাৎ হয় আওয়ামী লীগের বর্তমান প্রেসিডিয়াম সদস্য এবং গৃহায়ন ও গণপূর্তমন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেনের। বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে প্রথম সাক্ষাতেই তিনি নেতার (বঙ্গবন্ধু) সম্মানে নৈশভোজের আয়োজন করেন। সেদিন বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে অনেক কথা হয়। বঙ্গবন্ধুর সে দিনের অনেক কথা আজও তার স্মৃতিতে জ্বলজ্বল করছে। পূর্ব পাকিস্তানের জনগণের অধিকার প্রতিষ্ঠার জন্য বঙ্গবন্ধু প্রণীত ছয় দফার প্রতি পূর্ণ সমর্থন থাকার কারণে বঙ্গবন্ধুর প্রতি দুর্বলতা ছিল অনেক আগে থেকেই। লাহোরে অধ্যয়নকালে তিনি ছয় দফা আন্দোলনের সঙ্গে নিজেকে সম্পৃক্ত 
করে বিভিন্ন সময়ে মিছিল-সমাবেশে সরাসরি অংশ নেন। শোকের মাস আগস্ট উপলক্ষে আলোকিত বাংলাদেশের বিশেষ আয়োজনে বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিচারণ করে এসব কথা বলেন মোশাররফ হোসেন।
বঙ্গবন্ধুর স্মৃতিচারণ করে মোশাররফ হোসেন বলেন, বঙ্গবন্ধুর জন্ম না হলে বাংলাদেশ স্বাধীন হতো না। ছয় দফার প্রশ্নে তিনি ছিলেন আপসহীন। বঙ্গবন্ধু ছয় দফা দিয়েছিলেন এ অঞ্চলের মানুষের বৈষম্য দূর করার জন্য। সে সময় আমাদের ওপর যে বৈষম্য চালানো হয়েছে তা লাহোরে অধ্যয়ন করার সময় আমি প্রত্যক্ষ করেছি। তারা আমাদের তুচ্ছ-তাচ্ছিল্য করত। এ ছয় দফার ভিত্তিতেই নির্বাচন হয়। ছয় দফা বাস্তবায়নের আন্দোলনে নিজের সম্পৃক্ততার কথা তুলে ধরতে গিয়ে তিনি বলেন, লাহোরে অধ্যয়নকালে আমি ছয় দফা আন্দোলনের সঙ্গে নিজেকে সম্পৃক্ত করে বিভিন্ন সময়ে মিছিল-সমাবেশে অংশ নেই। ১৯৬৬ সালে ছয় দফার যৌক্তিকতা তুলে ধরে লাহোরে পূর্ব পাকিস্তানে অধ্যয়নরত ছাত্রদের সংগঠন পূর্ব পাকিস্তান ছাত্র পরিষদের এক সমাবেশে সভাপতিত্ব করি। লাহোর থেকে দেশে ফিরে এম এ আজিজের হাত ধরে আওয়ামী লীগের রাজনীতির সঙ্গে সরাসরি সম্পৃক্ত এবং স্বাধীনতা আন্দোলনে ওতপ্রোতভাবে জড়িত হই। ১৯৭০ সালে সর্বপ্রথম তৎকালীন পূর্ব পাকিস্তান প্রাদেশিক পরিষদের সদস্য নির্বাচিত হই। 
বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে প্রথম সাক্ষাতের স্মৃতিচারণ করে মন্ত্রী আরও বলেন, ১৯৬৯ সালের ডিসেম্বরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান যখন সাংগঠনিক ট্যুরে কক্সবাজারে যান, তখন আমার সঙ্গে প্রথম দেখা হয়। বঙ্গবন্ধু তখন সারা দেশ চষে বেড়াচ্ছেন। ওইসময় তিনি কক্সবাজারে আসেন। বঙ্গবন্ধুর আসা উপলক্ষে কর্মসূচির জন্য কয়েকজন আমার কাছে চাঁদার জন্য আসেন। আমি তাদের বললাম আমি চাঁদা না দিয়ে বঙ্গবন্ধুর সম্মানে একটা নৈশভোজের আয়োজন করি। বঙ্গবন্ধু সঙ্গে সেদিন অনেকেই সে নৈশভোজে অংশ নেন। আমার মনে আছে, আমি সেদিন বঙ্গবন্ধুর পাশের চেয়ারে বসেছিলাম। সে দিনটি আমার স্মৃতিতে আজও জ্বলজ্বল করছে। সে দিনের একটা ছবি আজও আমি সংরক্ষণ করে রেখেছি। ওইদিন বঙ্গবন্ধু নেতাদের উদ্দেশে অনেক কথা বলেছিলেন। ঘুমুতে যাওয়ার আগ পর্যন্ত সেদিন আড্ডা হয়। সেদিনের একটা কথা আমার আজও মনে আছে, অ্যাডভোকেট নূর আহম্মদকে দেখে বঙ্গবন্ধু বললেন, পারবি মওলানা ফরিদকে পরাজিত করতে। নেজামি ইসলামের প্রতিষ্ঠাতা ছিলেন মওলানা ফরিদ। কক্সবাজার থেকে তিনি কখনও পরাজিত হননি। জবাবে নূর আহম্মদ বললেন, আপনি (বঙ্গবন্ধু) দোয়া করলে নিশ্চিত জিতব। প্রতিউত্তরে বঙ্গবন্ধু সেদিন বলেছিলেন, তোরা আমাকে ১৫১টা আসন এনে দে আমি দেখিয়ে দেব। তার মানে বঙ্গবন্ধু তখন থেকেই স্বাধীনতার প্রশ্নে কতখানি আত্মবিশ্বাসী ছিলেন ’৬৯ সালে তার ওই কথা থেকেই বোঝা যায়।   
বঙ্গবন্ধু প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে আওয়ামী লীগের এ প্রেসিডিয়াম সদস্য বলেন, একজন নেতার জনগণের প্রতি কেমন আত্মবিশ্বাস থাকলে প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পরও বাসায় কোনো নিরাপত্তা রক্ষী রাখতেন না। প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পরও তিনি ধানমন্ডি ৩২ নম্বরের বাসাতেই থাকতেন। সে বাসা ছিল সবার জন্য উন্মুক্ত। বাঙালি জাতিকে উনি এতো ভালোবাসতেন যে কখনও ভাবতেও পারেননি কোনো বাঙালি তাকে হত্যা করতে পারে। বঙ্গবন্ধুর ৩২ নম্বর বাসায় যাওয়ার স্মৃতির কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, ’৭৪ সালে আমার মা হজ করতে যাবেন, আমি মায়ের সঙ্গে যাব। তাই বঙ্গবন্ধুর দোয়া নিতে ধানমন্ডির বাসায় গিয়েছিলাম। বঙ্গবন্ধু তখন গণভবনে অফিস করলেও থাকতেন ৩২ নম্বরের বাসায়। বাসায় গিয়ে দেখি কোনো নিরাপত্ত রক্ষী নেই। আমি গিয়ে খবর দিতেই বঙ্গবন্ধু আমাকে দোতলায় ডেকে পাঠালেন। যেতেই বঙ্গবন্ধু জিজ্ঞস করলেন, কিরে কিসের জন্য এসেছিস। আমি উনাকে জানালাম মা হজ্ব করতে যাবেন তাই দোয়া নিতে এসেছি। বঙ্গবন্ধু তখন উনার সহধর্মিণীকে ডেকে বললেন, চট্টগ্রামের মোশাররফ এসেছে ওকে নাস্তা দাও। পরে নাস্তা খেয়ে দোয়া নিয়ে চলে আসলাম। সেদিন আমার একটা কথা বারবার মনে হয়েছে, একজন প্রধানমন্ত্রীর বাসায় কোনো নিরাপত্তা নেই। একজন মানুষ জনগণের ওপর কেমন বিশ্বাস থাকলে এ কাজ করতে পারে।  
মোশাররফ বলেন, কারাগারের রোজনামচা বই পড়লে জানা যায়, ১৫ আগস্টের খুনের সঙ্গে সরাসরি জড়িত সেই খুনি মুসতাককে তিনি বন্ধু হিসেবেই দেখতেন। কারাগারের রোজনামচায় বঙ্গবন্ধু বারবার লিখেছেন, বঙ্গবন্ধু যে সেলে ছিলেন তার পাশের সেলে খন্দকার মুসতাকসহ কয়েকজনকে রাখা হয়। জেলে একবার খন্দকার মুসতাক অসুস্থ হলে, বঙ্গবন্ধু তার খোঁজ নিতেন, কারারক্ষীদের কাছে জানতে চাইতেন, আমার বন্ধু কেমন আছে? সে ঠিকমতো খেয়েছেন কিনা? ঠিকমতো চিকিৎসা হচ্ছে কিনা? বঙ্গবন্ধু দূর থেকেই এসব তদারকি করতেন। একটা বন্ধু কি করে শত্রু হতে পারে। ইতিহাস বড় নির্মম। তিনি বলেন, বঙ্গবন্ধুর মতো কেউ আর এ দেশে জন্মগ্রহণ করবেন কিনা জানি না। তবে উনার অসমাপ্ত কাজকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন তার কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। শুধু এটুকু বলতে পারি, বঙ্গবন্ধুর সুযোগ্য কন্যার হাতেই বঙ্গবন্ধুর স্বপ্ন বাস্তবায়ন হবে।



সংবাদটি পড়া হয়েছে মোট : 646        
   আপনার মতামত দিন
     এক্সক্লুসিভ
খুলনার সঙ্গে ১৩ ঘন্টা পর আংশিক রেলযোগাযোগ শুরু
.............................................................................................
কিংবদন্তি অভিনেতা নায়করাজ রাজ্জাক আর নেই
.............................................................................................
বিচ্ছিন্ন দিনাজপুর, রেল যোগাযোগ বন্ধ
.............................................................................................
‘সেদিন বঙ্গবন্ধুর পাশের চেয়ারে বসেছিলাম’
.............................................................................................
চলচ্চিত্র নির্মাতা তারেক মাসুদ ও মিশুক মুনিরের ষষ্ঠ মৃত্যুবার্ষিকী রোববার
.............................................................................................
ধেয়ে আসছে ঘূর্ণিঝড় ‘মোরা’, চট্টগ্রাম ও কক্সবাজার সমুদ্র বন্দরসমূহকে ১০ নম্বর মহাবিপদ সংকেত
.............................................................................................
অপহরণ রুখলেন মহিলা শ্যুটার
.............................................................................................
নানা কর্মসূচির মধ্য দিয়ে সারাদেশে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত
.............................................................................................
দেশের সকল জেলাকে রেলের আওতায় আনা হবে : রেলপথ মন্ত্রী
.............................................................................................
মিটার গেজ লাইনের জন্য আরো ১০০ কোচ মেরামত করবে বাংলাদেশ রেলওয়ে
.............................................................................................
নিজ বাড়িতে গুলিবিদ্ধ হয়ে মারা গেলেন এমপি লিটন
.............................................................................................
বঙ্গোপসাগরে গভীর নিম্নচাপ, ৪ বন্দরে এক নম্বর সঙ্কেত
.............................................................................................
‘সরকার পরিবর্তন বুলেটে নয়, ব্যালটে’
.............................................................................................
মীর কাসেমের ফাঁসি কার্যকর
.............................................................................................
‘বাড়িঘরের নিরাপত্তা নিশ্চিত করে বের হোন’
.............................................................................................
লাকসামের নবাব হাউজের স্মৃতি বিলীনের পথে
.............................................................................................
আপু তোর শাড়িটা দেওয়া হলো না
.............................................................................................
ওমরাহ পালন করলেন প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................
কিডনি বিক্রির হুমকি দিত পাচারকারীরা : র‌্যাব
.............................................................................................
শৈলকুপায় স্কুলগামী ছাত্রীদের মাঝে বাইসাইকেল বিতরণ
.............................................................................................

সম্পাদক ও প্রকাশক মো: আবদুল মালেক, যুগ্ন সম্পাদক: নজরুল ইসলাম ভূঁইয়া । সম্পাদক র্কতৃক ২৪৪ ( প্রথম তলা ) ৪ নং জাতীয় স্টেডিয়াম, কমলাপুর, ঢাকা -১২১৪ থেকে প্রকাশিত এবং স্যানমিক প্রিন্টিং এন্ড প্যাকেজেস, ৫২/২ টয়েনবি র্সাকুলার রোড, ঢাকা -১০০০ থেকে মুদ্রিত । ফোন:- ০২-৭২৭৩৪৯৩, মোবাইল: ০১৭৪১-৭৪৯৮২৪, E-mail: info@dailynoboalo.com, noboalo24@gmail.com Design Developed By : Dynamic Solution IT & Dynamic Scale BD